ঢাকা ০৪:৫৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নর্থ ক্যারোলিনা অঙ্গরাজ্যে বন্দুক হামলায় ৩ পুলিশ কর্মকর্তাসহ ৪ জন নিহত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
  • আপডেট সময় : ০৬:২৩:৫৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৪ ৩৩ বার পড়া হয়েছে
Spread the love

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর চার কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। এই ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়েছেন আরও ৫ জন। বন্দুক হামলা আগ্নেয়াস্ত্র রাখার দায়ে এক ব্যক্তিকে আটক করতে হতাহত এসব পুলিশ কর্মকর্তা সেখানে গিয়েছিলেন।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) সন্ধ্যায় যুক্তরাষ্ট্রের নর্থ ক্যারোলিনা অঙ্গরাজ্যের শার্লট শহরে এই হামলার ঘটনা ঘটে বলে এক প্রতিবেদনে জানায় ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি।

পুলিশ জানায়, বন্দুকধারীদের সাথে পুলিশের তিনঘণ্টা যাবত গোলাগুলি হয়। এ সময় একজন সন্দেহভাজন হামলাকারীকে একটি বাড়ির সামনের উঠোনে মৃত অবস্থায় পাওয়া গেছে।

স্থানীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এই ঘটনায় দুজন হামলাকারী জড়িত ছিল। বন্দুক হামলায় নিহত চার কর্মকর্তা যুক্তরাষ্ট্রের মার্শাল টাস্কফোর্সের সদস্য। বিভিন্ন সংস্থার কর্মকর্তাদের নিয়ে এই টাস্কফোর্স গঠনা করা হয়। এই কর্মকর্তারা গতকাল থেকে অবৈধ অস্ত্র রাখার বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছিল। হামলাটিকে গত কয়েক দশকের মধ্যে মার্কিন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর উপর সবচেয়ে মারাত্মক হামলার মধ্যে একটি বলে বিবেচনা করা হচ্ছে।

শ্যারোলেট–মেকলেনবার্গ পুলিশ বিভাগের প্রধান জনি জেনিংস এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে সাংবাদিকদের জানান, কর্মকর্তাদের দিকে গুলি ছোড়া হলেও তারাও পাল্টা গুলি চালায়। সে সময় বাড়ির ভেতর থেকে তাদের ওপর অনবরত গুলি ছোড়া হয়।

তিনি আরও বলেন, ঘটনাস্থল থেকে একটি উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন রাইফেল উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘আজ আমরা এমন কিছু বীরকে হারিয়েছি যারা আমাদের জনগণকে নিরাপদ রাখার জন্য কর্মরত ছিল।’

পুলিশ জানিয়েছে, ওই বাড়িতে অবস্থান করা অপর দুইজন, একজন নারী এবং একজন ১৭ বছর বয়সী যুবককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তাদের মধ্যে অন্তত একজন কর্মকর্তাকে লক্ষ্য করে গুলি করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নর্থ ক্যালিনার গভর্নর রয় কপার নিশ্চিত করেছেন যে, নিহত কর্মকর্তাদের মধ্যে দুজন প্রাপ্তবয়স্ক সংশোধন বিভাগে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

এদিকে শার্লটের মেয়র ভি লিলেস জানিয়েছেন, এই হামলার বিষয়ে তিনি প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে কথা বলেছেন। তিনি এই ঘটনায় হতাহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

নর্থ ক্যারোলিনা অঙ্গরাজ্যে বন্দুক হামলায় ৩ পুলিশ কর্মকর্তাসহ ৪ জন নিহত

আপডেট সময় : ০৬:২৩:৫৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৪
Spread the love

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক হামলায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর চার কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন। এই ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়েছেন আরও ৫ জন। বন্দুক হামলা আগ্নেয়াস্ত্র রাখার দায়ে এক ব্যক্তিকে আটক করতে হতাহত এসব পুলিশ কর্মকর্তা সেখানে গিয়েছিলেন।

সোমবার (২৯ এপ্রিল) সন্ধ্যায় যুক্তরাষ্ট্রের নর্থ ক্যারোলিনা অঙ্গরাজ্যের শার্লট শহরে এই হামলার ঘটনা ঘটে বলে এক প্রতিবেদনে জানায় ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি।

পুলিশ জানায়, বন্দুকধারীদের সাথে পুলিশের তিনঘণ্টা যাবত গোলাগুলি হয়। এ সময় একজন সন্দেহভাজন হামলাকারীকে একটি বাড়ির সামনের উঠোনে মৃত অবস্থায় পাওয়া গেছে।

স্থানীয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এই ঘটনায় দুজন হামলাকারী জড়িত ছিল। বন্দুক হামলায় নিহত চার কর্মকর্তা যুক্তরাষ্ট্রের মার্শাল টাস্কফোর্সের সদস্য। বিভিন্ন সংস্থার কর্মকর্তাদের নিয়ে এই টাস্কফোর্স গঠনা করা হয়। এই কর্মকর্তারা গতকাল থেকে অবৈধ অস্ত্র রাখার বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছিল। হামলাটিকে গত কয়েক দশকের মধ্যে মার্কিন আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর উপর সবচেয়ে মারাত্মক হামলার মধ্যে একটি বলে বিবেচনা করা হচ্ছে।

শ্যারোলেট–মেকলেনবার্গ পুলিশ বিভাগের প্রধান জনি জেনিংস এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে সাংবাদিকদের জানান, কর্মকর্তাদের দিকে গুলি ছোড়া হলেও তারাও পাল্টা গুলি চালায়। সে সময় বাড়ির ভেতর থেকে তাদের ওপর অনবরত গুলি ছোড়া হয়।

তিনি আরও বলেন, ঘটনাস্থল থেকে একটি উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন রাইফেল উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘আজ আমরা এমন কিছু বীরকে হারিয়েছি যারা আমাদের জনগণকে নিরাপদ রাখার জন্য কর্মরত ছিল।’

পুলিশ জানিয়েছে, ওই বাড়িতে অবস্থান করা অপর দুইজন, একজন নারী এবং একজন ১৭ বছর বয়সী যুবককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তাদের মধ্যে অন্তত একজন কর্মকর্তাকে লক্ষ্য করে গুলি করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নর্থ ক্যালিনার গভর্নর রয় কপার নিশ্চিত করেছেন যে, নিহত কর্মকর্তাদের মধ্যে দুজন প্রাপ্তবয়স্ক সংশোধন বিভাগে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

এদিকে শার্লটের মেয়র ভি লিলেস জানিয়েছেন, এই হামলার বিষয়ে তিনি প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে কথা বলেছেন। তিনি এই ঘটনায় হতাহতদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।