ঢাকা ১০:৪৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ১১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম ::
জমকালো আয়োজনে শ্রীমঙ্গলে অনুষ্ঠিত হলো এসবিএ’র ব্যান্ড ফেস্টিভ্যাল-১০  আগামীকাল ২৫ এপ্রিল বাংলাদেশ দোকান মালিক সমিতি সিলেট জেলা শাখার অভিষেক দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রীর সাথে ঢাকাস্থ ব্রিটিশ হাইকমিশনারের সৌজন্য সাক্ষাৎ দূতাবাসের পদক্ষেপে মিয়ানমারের কারাগার থেকে ফিরছেন ১৭৩ বাংলাদেশি সুনামগঞ্জে ৭ এপিবিএন এর অভিযানে ১টি চোরাই মোটরসাইকেলসহ একজন আটক সদর উপজেলা নির্বাচনে অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিকের নির্বাচনী কার্যালয় উদ্বোধন মেলান্দহে ট্রাক ও সিএনজির মুখোমুখি সংঘর্ষে সাত বৎসরের এক শিশু নিহত সিলেটে ডিবি পুলিশের অভিযানে জুয়া খেলার সামগ্রীসহ ১০ জন জুয়ারী গ্রেফতার সিলেটে পুলিশের অভিযানে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ট্যাবলেট সহ ১ জন আটক লালাবাজার বিদ্যালয় ও কলেজের ‘রূপকল্প ২০৩০’ প্রণয়নে সুধীজনের মতবিনিময়

‘আত্মহত্যা’র চেষ্টা ঝুলন্ত স্ত্রীকে নামিয়ে মৃত ভেবে স্বামীর ‘আত্মহত্যা’

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:
  • আপডেট সময় : ১২:৫৩:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৪ মার্চ ২০২৪ ২৮ বার পড়া হয়েছে
Spread the love

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি

পারিবারিক কলহের জেরে সাতক্ষীরার ঝুটিতলায় ‘আত্মহত্যা’র চেষ্টা করেছিলেন এক গৃহবধূ। তবে তাঁকে বাঁচিয়ে নিজে ‘আত্মহত্যা’ করেছেন স্বামী সোহেল রানা (২৫)। সোমবার এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর অবস্থায় গৃহবধূ সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

নিহত সোহেল রানা শ্যামনগর উপজেলার খুটিকাটা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি পেশায় ঘের ব্যবসায়ী ছিলেন। সাতক্ষীরা পৌরসভার ঝুটিতলা এলাকায় বাড়ি তৈরি করে বসবাস করতেন তিনি। এ দম্পতির একটি ছেলেসন্তান রয়েছে।

প্রতিবেশী কাঞ্চন রহমানসহ কয়েকজন জানান, সোহেল-রুপা দম্পত্তির মধ্যে প্রায়ই পারিবারিক কলহ দেখা দিত। সোমবার দুপুরে তাদের ঝগড়া হয়। এক পর্যায়ে ছেলেকে নিয়ে পাশের এলাকায় বেড়াতে যান সোহেল। আধাঘণ্টা পর বাড়ি ফিরে স্ত্রীকে ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস নেওয়া অবস্থায় দেখতে পান। দ্রুত তাঁকে নামিয়ে খাটে রাখেন তিনি।

স্ত্রীকে অচেতন অবস্থায় দেখে সোহেল মনে করেন, তাঁর স্ত্রী মারা গেছেন। এক পর্যায়ে তিনিও দড়ি দিয়ে একই ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস নেন। প্রতিবেশীরা এসে তাদের উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সোহেলকে মৃত ঘোষণা করেন। অচেতন অবস্থায় স্ত্রী রুপাকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

গৃহবধূর মা জানান, তাঁর মেয়ের জ্ঞান ফিরেছে। এখন ভালো আছে। জামাতা সোহেল রানার মৃত্যুতে তিনি শোকাহত বলে জানান।

সদর থানার ওসি মহিদুল ইসলাম বলেন, সোহেল রানার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

‘আত্মহত্যা’র চেষ্টা ঝুলন্ত স্ত্রীকে নামিয়ে মৃত ভেবে স্বামীর ‘আত্মহত্যা’

আপডেট সময় : ১২:৫৩:৩৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৪ মার্চ ২০২৪
Spread the love

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি

পারিবারিক কলহের জেরে সাতক্ষীরার ঝুটিতলায় ‘আত্মহত্যা’র চেষ্টা করেছিলেন এক গৃহবধূ। তবে তাঁকে বাঁচিয়ে নিজে ‘আত্মহত্যা’ করেছেন স্বামী সোহেল রানা (২৫)। সোমবার এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর অবস্থায় গৃহবধূ সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

নিহত সোহেল রানা শ্যামনগর উপজেলার খুটিকাটা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি পেশায় ঘের ব্যবসায়ী ছিলেন। সাতক্ষীরা পৌরসভার ঝুটিতলা এলাকায় বাড়ি তৈরি করে বসবাস করতেন তিনি। এ দম্পতির একটি ছেলেসন্তান রয়েছে।

প্রতিবেশী কাঞ্চন রহমানসহ কয়েকজন জানান, সোহেল-রুপা দম্পত্তির মধ্যে প্রায়ই পারিবারিক কলহ দেখা দিত। সোমবার দুপুরে তাদের ঝগড়া হয়। এক পর্যায়ে ছেলেকে নিয়ে পাশের এলাকায় বেড়াতে যান সোহেল। আধাঘণ্টা পর বাড়ি ফিরে স্ত্রীকে ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস নেওয়া অবস্থায় দেখতে পান। দ্রুত তাঁকে নামিয়ে খাটে রাখেন তিনি।

স্ত্রীকে অচেতন অবস্থায় দেখে সোহেল মনে করেন, তাঁর স্ত্রী মারা গেছেন। এক পর্যায়ে তিনিও দড়ি দিয়ে একই ফ্যানের সঙ্গে গলায় ফাঁস নেন। প্রতিবেশীরা এসে তাদের উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সোহেলকে মৃত ঘোষণা করেন। অচেতন অবস্থায় স্ত্রী রুপাকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

গৃহবধূর মা জানান, তাঁর মেয়ের জ্ঞান ফিরেছে। এখন ভালো আছে। জামাতা সোহেল রানার মৃত্যুতে তিনি শোকাহত বলে জানান।

সদর থানার ওসি মহিদুল ইসলাম বলেন, সোহেল রানার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।